কম ঘুমালে শিশুরা স্থূলতায় আক্রান্ত হয়

বড়দের তুলনায় ছোটদের বেশি ঘুম প্রয়োজন, একথা প্রায়ই বলেন বিশেষজ্ঞরা। কিন্তু তারা যদি পর্যাপ্ত না ঘুমায় তাহলে কী হয়? এ বিষয়ে বিশেষজ্ঞরা বলেন, পর্যাপ্ত না ঘুমালে শিশুদের দেহের ওজন স্বাভাবিকের তুলনায় বেড়ে যাওয়ার প্রবণতা দেখা যায়, যা আদতে শিশুর ক্ষতির কারণ হয়।

কিন্তু দেখা যায়, অনেক শিশুই রাতের বেশিরভাগ সময় জেগে থাকে। দিনেও ঘুমাতে চায় না। এটি তাদের জীবনে নেতিবাচক প্রভাব বয়ে আনে বলে দাবি করেছে আমেরিকার কলোরাডো বোল্ডার বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা।

গবেষকরা বলেছেন, কম ঘুমালে শিশুর মধ্যে বেশি ক্যালরি গ্রহণের প্রবণতা দেখা দেয়। ফলে তার স্থুলতায় আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা বেড়ে যায়।

এ বিষয়ে কলোরাডো বোল্ডার বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারি অধ্যাপক মনিক লি বরজোয়া বলেন, কম ঘুমানোর কারণে তিন থেকে চার বছরের শিশুদের মধ্যে স্বাভাবিকের থেকে ২০ শতাংশ বেশি ক্যালোরি, ২৫ শতাংশ বেশি চিনি এবং ২৬ শতাংশ বেশি শর্করা গ্রহণের প্রবণতা থাকে। ঘুম স্বাভাবিক হলে বাচ্চাদের চিনি এবং শর্করা গ্রহণের হার কমে আসে।

তারপরও তারা স্বাভাবিকের থেকে ১৪ শতাংশ বেশি ক্যালরি ও ২৩ শতাংশ বেশি ফ্যাট গ্রহণ করে থাকে। আর এতে তাদের ওজনও অস্বাভাবিকভাবে বেড়ে যায়।

About Kuy@s@News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*