ঢাকায় বজ্রবৃষ্টি, সারাদেশে তিনদিন

হঠাৎ অন্ধকারাচ্ছন্ন আকাশ। মুহূর্তেই ঘনকালো মেঘ থেকে অঝোরো বৃষ্টি। মঙ্গলবার (১৭ এপ্রিল) বেলা ১২টার দিকে ঢাকায় মুষলধারে বৃষ্টি শুরু হয়। সঙ্গে বিজলী চমকানোসহ বজ্র। তবে ভ্যাপসা গরমের পর বৃষ্টিতে স্বস্তি নেমে এসেছে রাজধানীবাসীর মধ্যে। দেশের বিভিন্ন স্থানেও বৃষ্টির খবর মিলেছে।

ঢাকায় দুপুরে বৃষ্টি শুরু হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে নগরজীবনে ছন্দপতন ঘটে। হঠাৎ বৃষ্টিতে বিকাপে পড়েন রাজধানীবাসী। বিভিন্ন ন্থানে বৃষ্টিতে যান চলাচলে ধীরগতি নেমে আসে।   আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছে, পশ্চিমা লঘুচাপের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকা এবং মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে।

সকাল ৯টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং রাজশাহী, রংপুর, ঢাকা, খুলনা, বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের দু’এক জায়গায় বিদ্যুৎ চমকানো, দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি/বজ্র বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্তভাবে শিলা বৃষ্টি হতে পারে।

এদিকে, রাজশাহী, ঢাকা ও রাঙামাটিসহ খুলনা বিভাগের উপর দিয়ে মৃদু তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। তবে বৃষ্টিতে সারাদেশে দিনের তাপমাত্রা (১-৩) ডিগ্রি সেলসিয়াস হ্রাস পেতে পারে এবং রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে।   আবহাওয়ার তিনদিনের পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, এই সময়ে বৃষ্টি ও বজ্রসহ বৃষ্টির প্রবণতা অব্যাহত থাকতে পারে।   অন্যদিকে, সন্ধ্যা ৬টায় দেশের অভ্যন্তরীণ নদী বন্দরগুলোর জন্য আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, রংপুর, বগুড়া, টাঙ্গাইল, ময়মনসিংহ, ঢাকা, ফরিদপুর, কুমিল্লা এবং সিলেট অঞ্চলগুলোর উপর দিয়ে পশ্চিম/উত্তর-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫-৬০ কি. মি. বেগে অস্থায়ীভাবে দমকা/ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। সেই সঙ্গে বৃষ্টি/বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে।

এসব এলাকার নদী বন্দরগুলোকে ১ নম্বর সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।   গত ২৪ ঘণ্টায় ফরিদপুরে ৯ মিলিমিটার, ময়মনসিংহে ১২ মিলিমিটার, সিরাজগঞ্জের তাড়াশে ১৬ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করেছে আবহাওয়া অফিস। এছাড়া নেত্রকোনা ও কুমিল্লায় সামান্য বৃষ্টিপাত হয়েছে।

About Kuy@s@News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*