রাজস্থানের কাছে হারের জন্য শেবাগকে দুষেছেন প্রীতি

প্রীতির সঙ্গে ঠিক জমছে না শেবাগের। ছাড়তে পারেন পাঞ্জাবের দায়িত্ব। ছবি: বিসিসিআই

রাজস্থান রয়্যালসের কাছে মঙ্গলবার ১৫ রানে হেরেছে পাঞ্জাব কিংস ইলেভেন। দলটির আংশিক মালিক প্রীতি জিনতা এই হার কোনোভাবেই মেনে নিতে পারেননি। বলিউড অভিনেত্রী এ জন্য দুষেছেন পাঞ্জাবের ‘মেন্টর’ বিরেন্দর শেবাগকে। তাঁর ‘ট্যাকটিস’ নিয়ে প্রশ্ন তোলেন প্রীতি। এ নিয়ে ম্যাচ শেষেই বাগ্‌যুদ্ধ হয়েছে দুজনের। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, এ ঘটনায় পাঞ্জাবের দায়িত্ব ছাড়তে পারেন ভারতের সাবেক ওপেনার।

আইপিএলের প্লে-অফ পর্বে খেলার ভালো সুযোগ রয়েছে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের। মঙ্গলবার রাজস্থান রয়্যালসের কাছে হারে দলটির আহামরি কোনো ক্ষতি হয়নি। পয়েন্ট তালিকার তিনেই টিকে আছে পাঞ্জাব। কিন্তু পাঞ্জাবের আংশিক মালিক প্রীতি জিনতা হারটা কোনোভাবেই মেনে নিতে পারেননি। ম্যাচ শেষেই এ নিয়ে তাঁর সঙ্গে এক চোট কথার লড়াই হয়েছে পাঞ্জাবের ‘মেনটর’ বীরেন্দর শেবাগের। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, এ ঘটনার কারণে পাঞ্জাবের চাকরি ছেড়ে দিতে পারেন ভারতীয় ক্রিকেট তারকা।

আগে ব্যাটিংয়ে নেমে ৮ উইকেটে ১৫৮ রান তুলেছিল রাজস্থান। তাড়া করতে নেমে ১৫ রানের ব্যবধানে হারে পাঞ্জাব। ম্যাচ শেষে খেলোয়াড়েরা ড্রেসিং রুমে ঢোকার আগেই প্রীতি প্রশ্ন তোলেন শেবাগের ‘ট্যাকটিস’ নিয়ে। ভারতের সাবেক ওপেনার এ সময় প্রীতিকে বোঝানোর চেষ্টা করলেও লাভ হয়নি। হারের জন্য শেবাগের ট্যাকটিসকেই দুষতে থাকেন প্রীতি।

দুজনের তর্কযুদ্ধের ঘটনা সম্বন্ধে অবগত একটি সূত্রের উদ্ধৃতি প্রকাশ করেছে ‘মুম্বাই মিরর’। সেই সূত্র এই সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, ‘মনোজ তিওয়ারি, করুণ নায়ারের মতো পরীক্ষিত ব্যাটসম্যানদের বসিয়ে (রাজস্থানের বিপক্ষে) অধিনায়ক রবি চন্দ্রন অশ্বিনকে তিনে ব্যাটিংয়ে পাঠানো হয়। সিদ্ধান্তটা বুমেরাং হয়েছে। কারণ অশ্বিন ফিরেছেন শূন্য রানে। প্রীতির রাগটা এখানেই। প্রীতির অভিযোগ ছিল, ‘অপ্রয়োজনীয়’ পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্যই এই হার। শেবাগ অবশ্য প্রীতিকে যুক্তি দিয়ে বোঝানোর চেষ্টা করছিলেন।

তবে ভারতের সাবেক ওপেনার ব্যাপারটিকে মোটেও ইতিবাচক হিসেবে দেখেননি। ঘটনাটা পাঞ্জাবের বাকি দুই মালিক নেস ওয়াদিয়া ও মোহিত বর্মণকে জানিয়েছেন শেবাগ। ১০৪ টেস্টে দুটি ‘ট্রিপল’ সেঞ্চুরিসহ মোট ৮ হাজার ৫৮৬ রান করা শেবাগ সাফ বলে দিয়েছেন, তাঁকে যেন প্রীতি ‘জ্ঞান দিতে’ না আসেন। মুম্বাই মিরর জানিয়েছে, প্রীতির সঙ্গে ট্যাকটিস নিয়ে শেবাগের তর্কযুদ্ধ এবারই প্রথম নয়। বলিউড তারকা এর আগেও শেবাগের কাজে ‘হস্তক্ষেপ’ করেছেন বলে জানিয়েছে এই সংবাদমাধ্যম।

পাঞ্জাবের একটি সূত্র মুম্বাই মিররকে বলেছে, প্রীতির মুখে লাগাম পরানোর কথা অন্যান্য মালিককে বলেছেন শেবাগ। তিনি চান প্রীতি যেন অন্তত ক্রিকেটীয় ব্যাপারে তাঁর বিচারবুদ্ধির ওপর আস্থা রাখেন।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, এ ঘটনার পর পাঞ্জাবের সঙ্গে পাঁচ বছরের সম্পর্কের পাট চুকিয়ে ফেলতে পারেন শেবাগ। এবারের আইপিএল শেষেই নিয়ে নিতে পারেন এ সিদ্ধান্তটি। সংবাদমাধ্যমের পক্ষ থেকে শেবাগের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি সাড়া দেননি। শেবাগের ঘনিষ্ঠ সূত্র জানিয়েছে, খেলোয়াড়দের মনোযোগে যেন বিঘ্ন না ঘটে, শেবাগ চুপ করে আছেন সে কারণেই। ডুব মেরেছেন প্রীতিও। তাঁকে মুঠোফোনে পায়নি সংবাদমাধ্যম। পাঞ্জাবের আরেক মালিক মোহিত বর্মণ অবশ্য জানিয়েছেন, ঘটনার সময় তিনি উপস্থিত ছিলেন না। যত দূর জানেন ব্যাপারটা তেমন কিছু নয়।

About admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*