রোমার কাছে হেরে মারাত্মক ট্রলের শিকার মেসি ও তার স্ত্রী, দেখুন কি বলল ভক্তরা

স্তাদিও ওলিম্পিকো স্টেডিয়ামে তখন শব্দব্রহ্ম আছড়ে পড়ছে। দিগ্বিদিকশূন্য হয়ে ছুটে বেড়াচ্ছেন হাজার-হাজার জনতা। মুখে শুধু একটাই শব্দ-‘রোমা পেরেছে, রোমা পেরেছে, রোমা পেরেছে’। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের কোয়ার্টার ফাইনালের প্রথম লেগে ১-৪ গোলে হার। তাও প্রতিপক্ষ কিনা বার্সেলোনা। সেই মেসি সমন্বিত বার্সার বিরুদ্ধে যে ঘরের মাঠে এভাবে অঘটন ঘটাবে রোমা, তা অনেকে কল্পনাও করেনি। কাতালান ক্লাবকে ৩-০ গোলে হারিয়ে সেমিফাইনালে পৌঁছে গেল রোমা। আর তার পর থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় শুরু হয়ে গেল লিওনেল মেসিকে নিয়ে সমালোচনা। মাঠে স্বামীর খারাপ পারফরম্যান্সের আঁচ লাগল স্ত্রী অ্যান্তোনেলা রোকুজোর গায়েও। মেসি ভক্তদের রোষের মুখে পড়লেন তিনিও।

দিন কয়েক আগে ছোট ছেলে সিরোকে সঙ্গে নিয়ে একটি ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছিলেন মেসির বেটারহাফ। মঙ্গলবারের হারের পর সেই ছবিতেই মেসির বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেন নেটিজেনরা। অনেকেই লিখেছেন, এটাই মেসির সবচেয়ে খারাপ পারফরম্যান্স। তাই এবার তাঁর অবসর নেওয়ার সময় হয়ে গিয়েছে।

আরেকটি কমেন্টে লেখা, মেসি শেষ হয়ে গিয়েছেন। এবার ফুটবল থেকে সরে দাঁড়ান তিনি।

তবে শুধু নেটিজেনরাই নন, বার্সা সুপারস্টারকে সমালোচনায় বিদ্ধ করেছে স্থানীয় সংবাদমাধ্যমও। বার্সেলোনার সংবাদপত্রে মেসিকে ‘ভূত’ আখ্যা দেওয়া হয়েছে। কারণ, রোমার ডিফেন্ডারদের সামনে তাঁকে খুঁজেই পাওয়া গেল গেল। নির্ধারিত ৯০ মিনিট যেন অদৃশ্যই ছিলেন পাঁচবারের ব্যালন ডি’অর জয়ী। একবারই গোলমুখী একটা শট নিয়েছিলেন, যা গিয়ে জমা হয় রোমা গোলকিপারের হাতে।

 

পাশাপাশি একটি সংবাদপত্রে এও লেখা হয়েছে, এই হারের পর আতঙ্কে রয়েছেন মেসি। তাঁর ভয়, তাঁকে টপকে ষষ্ঠ ব্যালন ডি’অর হয়তো ঝুলিতে পুরবেন চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোই। মেসি সমালোচিত হলেও এডি জেকোর প্রশংসা করেছে মিডিয়া। বার্সার বিরুদ্ধে রোমার প্রত্যাবর্তনকেও অপার্থিব বলে ব্যাখ্যা করা হয়েছে।

এই নিয়ে টানা তিনবার শেষ আটে উঠে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ থেকে ছিটকে গেল বার্সেলোনা। ম্যাচ শেষে মিডফিল্ডার সের্জিও বুস্কেটস তো স্বীকার করেই নিলেন, রোমার আক্রমণাত্মক ফুটবলের কাছে হার মেনেছেন তাঁরা। অধিনায়ক আন্দ্রে ইনিয়েস্তা বলেন, “খুব যন্ত্রণাদায়ক ঘটনা। কেউ আশা করেনি এভাবে বার্সেলোনা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ থেকে ছিটকে যাবে। সত্যি বলতে কী আমরা কখনওই ম্যাচটাকে নিজেদের নিয়ন্ত্রণে রাখতে পারিনি।”

About Kuy@s@News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*